রবিবার, ২২ মে ২০২২, ০৫:৩৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
কুসিক নির্বাচন: ১নং ওয়ার্ডের ভোটারদের কাছে জনপ্রিয় হয়ে উঠেছেন রোটা:আবুল হোসেন ছোটন চুনারুঘাটে চা শ্রমিক দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা।। ১০ দফা দাবি উত্থাপন যশোরে ১ যুবককে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ। শার্শা ঝিকরগাছা বাজার গুলোতে জৈষ্ঠ্যের মধু মাসে রসে ভরা তালের শাঁস। গফরগাঁওয়ে সাজাপ্রাপ্ত পলাতক আসামী গ্রেফতার ভারতে পাচার ৫ তরুণী বিশেষ ট্রাভেল পারমিটের মাধ্যেমে বেনাপোল দিয়ে দেশে ফেরৎ। ভৈরব শান্তিপূর্ণ ভাবে উপজেলা ও পৌর বিএনপি’র দ্বি- বার্ষিক সন্মেলন অনুষ্ঠিত। ক্যান্সার আক্রান্ত রোগীকে অর্থ সহায়তা দিয়ে পাশে দাঁড়ালেন “তিতাস ইয়াং ফ্রেন্ডস ক্লাব” মুন্সীগঞ্জে বাংলা টিভির বর্ষপূর্তি উদযাপন ঘাট ইজারায় দূর্নীতি ইজারাদার ও ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা

উচ্চ আদালতের রায়েও টনক নড়েনি জালালাবাদ গ্যাস কর্তৃপক্ষের, চুনশিল্প হুমকির মুখে

Coder Boss
  • সংবাদটি লিখা হয়েছে : বুধবার, ৭ এপ্রিল, ২০২১
  • ১২০ জন পড়েছে

 

 

মেহেদি স্টাফ রিপোর্টার

 

বাণিজ্যিক হারে গ্যাস বিল, লাগামহীন বকেয়া বিল, ভারত কর্তৃক চুনাপাথর রপ্তানি প্রায় বন্ধ, চুনা কারখানার গ্যাস সংযোগ বিচ্ছিনসহ বিভিন্ন কারনে ছাতকের চুনাপাথর ব্যবসায়ীদের এখন পথে বসার উপক্রম হয়ে দাঁড়িয়েছে। বিভিন্ন প্রতিকূলতা ও ঘাত-প্রতিঘাতের মধ্য দিয়ে এখানের ব্যবসায়ীরা চুন ব্যবসা চালিয়ে গেলেও অতিরিক্ত গ্যাস বিলের কারণে তারা দাঁড়িয়ে উঠতে পারছেন না। চুক্তিতে রয়েছে শিল্পহারে গ্যাস বিল নির্ধারণ করবে জালালাবাদ গ্যাস কর্তৃপক্ষ। কিন্তু তারা সেটি বাস্তবায়ন না করে বাণিজ্যিক হারে এখানের চুনা কারখানা ব্যবসায়ীদের কাছ থেকে গ্যাস বিল আদায় করছেন। একদিকে চুন শিল্প ব্যবসা পড়েছে মারাত্মক হুমকির মুখে, অন্যদিকে মড়ার উপর খাঁড়ার ঘা হিসেবে এখানে দেখা দিয়েছে বাণিজ্যিক হারের গ্যাস বিল। পেট্রো বাংলার অধিনস্ত তিতাস গ্যাস দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে চুন শিল্পের গ্যাস বিল শিল্প হারেই নিচ্ছে। আর ওই কারনে উচ্চ আদালতে ছাতক লাইম ইন্ডাস্ট্রিজ ওনারস এসোসিয়েশনের পক্ষে সভাপতি আব্দুল মমিন চৌধুরী রিট পিটিশন (নং-৯০৩০/১৯) দায়ের করেছিলেন। এরই প্রেক্ষিতে ২০২০ সালের ২ ডিসেম্বর রিটের নিষ্পত্তি করে রায় ঘোষণা করা হয়। রায়ের কপি চেয়ারম্যান পেট্রো বাংলা ও জালালাবাদ গ্যাস কর্তৃপক্ষকে দেয়া হয়েছে বলে তিনি জানিয়েছেন। রায়টি শিল্পহারে গ্যাস বিল পরিশোধের সাথে সম্পর্কিত হওয়ায় জালালাবাদ গ্যাস কর্তৃপক্ষ ক্ষুব্ধ হয়ে গত ২৪ মার্চ ছাতকের সীমা লাইম ইন্ডাস্ট্রিজের গ্যাস সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেয়। এর আগেও আনোয়ার লাইম ইন্ডাস্ট্রিজ, একতা লাইম ইন্ডাস্ট্রিজের গ্যাস সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা হয়েছে। সংযোগ বিচ্ছিনের কারনে শুধু মালিকরাই ক্ষতিগ্রস্ত হননি। তাদের সাথে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন কারখানায় জড়িত দিন মুজুর শ্রমিকও। কারখানা বন্ধ হওয়ায় একদিকে যেমন চুনশিল্প ধ্বংস হয়ে যাচ্ছে অন্যদিকে ওই শিল্পের সাথে সম্পৃক্ত হাজার-হাজার শ্রমিক বেকার হয়ে পড়ছেন। এখানের চুন উৎপাদন শিল্পের একাধিক মালিক জানান, চুন বহুবিধ কাজে ব্যবহৃত অত্যাবশ্যকীয় রাসায়নিক দ্রব্য ও বৈদেশিক মুদ্রা সাশ্রয়কারী একটি শিল্প। দেশের চিনিকল, পেপার মিল, সিমেন্ট কারখানা, ষ্টিলমিল, ওয়াটার ট্রিটমেন্ট, ট্যানারি ও চিংড়ি চাষের ঘের, দালান রংয়ের কাজসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে চুনের ব্যবহার অপরিহার্য। চুন শিল্পকে বাঁচিয়ে রাখার স্বার্থে হাইকোর্টের আদেশের প্রতি সম্মান দেখিয়ে জালালাবাদ গ্যাসের চুক্তি অনুযায়ী শিল্প হারে বিল পরিশোধের পদ্ধতি চালুর দাবি জানান এখানের চুন শিল্প ব্যবসায়ীগণ। অন্যথায় এখানের চুন শিল্পগুলো ধ্বংস হয়ে যাবে বলে নেতৃবৃন্দ মন্তব্য করেছেন।

ফেসবুকে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ধরনের আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2022 Agrajatra 24
Design & Develop BY Coder Boss
themesba-lates1749691102