শুক্রবার, ২০ মে ২০২২, ০৭:৩২ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
শেখ হাসিনার হাতেই বাংলাদেশ নিরাপদ…..নওগাঁয় খাদ্যমন্ত্রী রাজশাহীর হলিদাগাছিতে ৩ ফসলি জমিতে চলছে পুকুর খনন যশোরে পুরুষ সেজে মধুর প্রেমের সম্পর্কের ফাঁদে ফেলে সর্বস্ব লুটে নিতো তরুণী। যশোরের চৌগাছা সীমান্ত থেকে ১৪ কেজি ৪৫০ গ্রামের ১শ’ ২৪ টি স্বর্ণের বার সহ ১জন আটক। “গ্লোবাল ক্রাইসিস রেসপন্স গ্রুপ” বিশ্ব নেতৃবৃন্দের ছয় সদস্যের একজন শেখ হাসিনা। শার্শা সীমান্তের ইছামতি নদী থেকে অজ্ঞাত এক যুবকের লাশ উদ্ধার যশোরে চোরাই মোবাইলসহ গ্রেফতার ২ লক্ষীপুর মাতৃমঙ্গল হতে বের হয়ে রাস্তায় স্বাভাবিক প্রসবে সন্তান জন্ম “বিট পুলিশিং বাড়ি বাড়ি, নিরাপদ সমাজ গড়ি” সোমবার দেশে আসছে বিশিষ্ট সাংবাদিক আবদুল গাফফার চৌধুরীর মরদেহ।

পুনর্বাসন কেন্দ্রে বয়োজ্যেষ্ঠদের পাশে গাজীপুরের জেলা প্রশাসক ও লেডিস ক্লাবের সভাপতি

Coder Boss
  • সংবাদটি লিখা হয়েছে : মঙ্গলবার, ১৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২২
  • ৯১ জন পড়েছে

রেজানুর ইসলাম, গাজীপুর।

জানা যায়, পৃথিবীর প্রথম বৃদ্ধাশ্রম প্রতিষ্ঠিত হয় প্রাচীন চীনে। অসহায় বৃদ্ধদের জন্য আশ্রয়কেন্দ্রের উদ্যোগ নিয়েছিল শান রাজবংশ। খ্রিষ্টপূর্ব ২২০০ শতকে পরিবার থেকে বিতারিত বৃদ্ধদের জন্য এই আশ্রয়কেন্দ্র তৈরি করে ইতিহাসে স্থান করে নিয়েছেন এই শান রাজবংশ। বৃদ্ধাশ্রম অনেকটাই সংস্কৃতির অংশ হয়ে উঠেছে পাশ্চাত্য বিশ্বে। উন্নত বিশ্বের অনেক দেশেই পরিবারের ধারণা অনেকটা বিলুপ্তির পথে। অনেক জায়গায় পরিবার মানে শুধু একজনকেও বোঝানো হয়ে থাকে। একজন কিংবা দুইজন সদস্য নিয়েই যদি পরিবার আছে বলা যায়। তাহলে হয়তো কিছুদিন পর পরিবার শুধু সংজ্ঞায়নেই থেকে যাবে।

কয়েক দশক আগেও আমাদের দেশে বৃদ্ধাশ্রম তেমন একটা ছিল না। সময়ের সাথে সাথে এর সংখ্যা বৃদ্ধি পেয়েছে।

গ্রিভেন্সি গ্রুপের চেয়ারম্যান খতিব আব্দুল জাহিদ মুকুল ১৯৮৭ সালে উত্তরার আজমপুরে গড়ে তোলেন ‘বয়স্ক পুনর্বাসন কেন্দ্র’। ১৯৯৪ সালে সেটি স্থায়ীভাবে স্থানান্তরিত হয় গাজীপুরে।

১৯৯৫ সালে মাদার তেরেসা কেন্দ্রটির বর্ধিতাংশের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন। বর্তমানে কেন্দ্রীয় প্রবীণ নিবাস হিসাবে বিবেচিত হচ্ছে। কেন্দ্রটি ৭২ বিঘা জমির ওপর নির্মিত হলেও সম্প্রসারিত হয়ে ১০০ বিঘায় উন্নীত হয়েছে। মহিলা-পুরুষদের আলাদা ভবনে মোট ১২০০ মানুষ থাকার সুব্যবস্থা রয়েছে এই কেন্দ্রে। এছাড়াও সারাদেশে নিবন্ধিত ও নিবন্ধনহীন আরও অনেক বৃদ্ধাশ্রম রয়েছে। তাহলে কি ধীরে ধীরে আমাদের পরিবার সংস্কৃতির উপর নেতিবাচক প্রভাব পড়ছে? দীর্ঘদিন ধরে চলা পরিবার ব্যবস্থা কি লোপ পাচ্ছে? হয়তো আমাদের অগোচরে ধীরে ধীরেই তা হচ্ছে। আর তাই হয়তো পরিবারের প্রবীণ সদস্যটির জায়গা হচ্ছে বৃদ্ধাশ্রমে।

গত ১০/০২/২০২২ তারিখ গাজীপুর সদর
উপজেলাধীন হোতাপাড়া এলাকায় অবস্থিত উক্ত বয়স্ক ব্যক্তিদের পুনর্বাসন কেন্দ্রে বসবাসকারী হতভাগ্য বয়োজ্যেষ্ঠ নাগরিকদের খবরাখবর নেওয়ার জন্য, তাদের সুখ দু:খের অংশীদার হওয়ার জন্য গাজীপুরের সকলস্তরের মানুষের অভিভাবক, গাজীপুরের সুযোগ‍্য জেলা প্রশাসক আনিসুর রহমান ও গাজীপুর লেডিস ক্লাবের সভাপতি নিঝুম বিন্দিয়া তাদের মাঝে উপস্থিত হয়ে কিছু সময় কাটান এবং তাদের মধ্যে কম্বল বিতরণ করেন।

এসময় তাদের সাথে ছিলেন জনাব আবুল কালাম, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক), গাজীপুর, জনাব সাদিক তানভীর, উপজেলা নির্বাহী অফিসার, গাজীপুর সদর এবং জনাব ওয়াসিউজ্জামান চৌধুরী, সহকারী কমিশনার ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট, জেলা প্রশাসন, গাজীপুর।

ফেসবুকে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ধরনের আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2022 Agrajatra 24
Design & Develop BY Coder Boss
themesba-lates1749691102